Subscribe Us

নির্বাচনকে কেন্দ্র করে পাবনায় আ.লীগের দুপক্ষের ব্যাপক সংঘর্ষ, আহত ২০

পাবনার বেড়া উপজেলা পরিষদের উপনির্বাচনকে কেন্দ্র করে স্থানীয় আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষে কমপক্ষে ২০ আহত হয়েছেন। এ সময় অন্তত ১০টি যানবাহন ভাঙচুর করা হয়েছে।

রবিবার (১৫ নভেম্বর) সকালে স্থানীয় বাসিন্দারা বলেন, গতকাল রাতে সিঅ্যান্ডবি মোড়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। তবে এখনো এলাকায় থমথমে ভাব বিরাজ করছে।

তারা জানান, শুক্রবার জাতসাখিনী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রেজাউল হক বাবুকে মনোনয়ন দেয় আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ড। গতকাল রাতে বাবু ও তার সমর্থকরা আনন্দ মিছিল বের করেন। সিঅ্যান্ডবি বাজার পার হওয়ার সময় বেড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের বহিষ্কৃত সভাপতি ও বরখাস্তকৃত পৌর মেয়র আব্দুল বাতেনের অনুসারীরা মিছিলে হামলা চালায়।

এ বিষয়ে রেজাউল হক বাবু বলেন, ‘বড় দল হিসেবে দলের অভ্যন্তরে মনোনয়ন নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা থাকতেই পারে। কিন্তু সভানেত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্ত অমান্য করে এমন হামলা মেনে নেওয়া যায় না।’

সহকারী পুলিশ সুপার (বেড়া সার্কেল) শেখ জিল্লুর রহমান বলেন, ‘অভ্যন্তরীণ কোন্দলের কারণেই এই ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় সাঁথিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।’

গত ১০ সেপ্টেম্বর পাবনার বেড়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল কাদের করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যান। আগামী ১০ ডিসেম্বর চেয়ারম্যান পদে উপনির্বাচনের ভোটগ্রহণ করবে নির্বাচন কমিশন।


 পাবনার সব খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন পাবনা বার্তার ইউটিউব চ্যানেল